সখীপুরে অটো রিকশা ডাকাতি মামলায় ৩ ডাকাত গ্রেফতার

386

সখীপুর প্রতিনিধি ॥
টাঙ্গাইলের সখীপুরে অটো রিকশা ডাকাতি মামলায় আন্তজেলা ডাকাত চক্রের তিন সদস্যকে গ্রেফতার করেছে টাঙ্গাইল ডিবি পুলিশ। বৃহস্পতিবার (৮ সেপ্টেম্বর) রাত নয়টার দিকে আশুলিয়া থানাধীন ট্ঙ্গুাবাড়ি এলাকা হতে তাদের গ্রেফতার করা হয়। জানা যায় গত ২৭ আগস্ট দিবাগত রাতে সখীপুর থানাধীন সলংগা বাজার সংলগ্ন দক্ষিণ পাশের পাঁকা রাস্তার উপর ব্যাটারি চালিত অটোরিক্সা ডাকাতি সংঘঠিত হওয়ার ঘটনায় হওয়া মামলায় এই তিন ডাকাতকে গ্রেফতার করা হয়।

সখীপুর থানা পুলিশ সূত্রে জানা যায়, ডাকাত দল ব্যাটারি চালিত অটোরিক্সা চালককে রশি ও গামছা দিয়ে বেঁধে এবং তাদের গায়ের গেঞ্জি খুলে তার মুখে ঢুকিয়ে দিয়ে ব্যাটারি চালিত অটোরিক্সা ডাকাতি করে নিয়ে যায়। এ ঘটনায় সখীপুর থানায় মামলা হয়।

ডাকাতি মামলার ঘটনাটি লোমহর্ষক এবং চাঞ্চল্যকর হওয়ায় টাঙ্গাইল জেলার পুলিশ সুপার এর নির্দেশনায় দ্রুত মামলার রহস্য উদঘাটন ও আসামী গ্রেফতার করার জন্য ডিবি (দক্ষিণ), টাঙ্গাইলের একটি টিম নিরন্তর প্রচেষ্টা চালিয়ে গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে ঘটনার রহস্য উদঘাটন করে। ডাকাতি ঘটনার সাথে জড়িত ব্যক্তির অবস্থান সনাক্ত করে সিরাজগঞ্জ জেলার উল্লাপাড়া
উপজেলার কয়রা সরাতলা গ্রামের শরীফুল ইসলাম ছেলে ইব্রাহিম হোসেন টুটুল (৩০), একই উপজেলার কয়রা বাগলপুরের মৃত খোকা সরকারের ছেলে ইছাকে (৩০) গ্রেফতার করা হয়।

আসামীদের দেওয়া তথ্য মতে আশুলিয়া থানাধীন ট্ঙ্গুাবাড়ি হাজী আম্বিয়া স্কুলের পিছন এলাকা হতে সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া উপজেলার কয়রা রতনদিয়া গ্রামের নুরুল ইসলামের ছেলে আবুল কালাম আজাদকে (২৫) ৮ সেপ্টেম্বর রাত ১১টায় তার নিজ অটো গ্যারেজ হতে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত আসামী আবুল কালাম আজাদ (২৫) এর হেফাজত হতে লুন্ঠিত একটি ব্যাটারি চালিত আটো রিকশাসহ সর্বমোট পাঁচটি ব্যাটারি চালিত আটো রিকশা উদ্ধার করা হয়।

গ্রেফতারকৃত আসামী ইব্রাহিম হোসেন টুটুল (৩০) এবং আবুল কালাম আজাদ (২৫) দুজনকেই জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সাত দিনের পুলিশ রিমান্ড চেয়ে আদালতে প্রেরণ করা হলে আদালত দুই দিনের পুলিশ রিমান্ড মুঞ্জুর করেন। গ্রেফতারকৃত আসামী ইছা (৩০) ডাকাতির সাথে জড়িত থাকার বিষয়ে নিজের দোষ স্বীকার করে আদালতে ফৌঃ কাঃ বিধি আইনের ১৬৪ ধারা মোতাবেক স্বীকারোক্তি মুলক জবানবন্দি প্রদান করেন। উক্ত ডাকাতির সাথে জড়িত অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতার করার লক্ষ্যে পুলিশি অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

ব্রেকিং নিউজঃ