ভূঞাপুরে এমপি ও মেয়রের অনুসারীদের সংঘর্ষে আহত ৬ জন ॥ বর্ধিত সভা স্থগিত

395

স্টাফ রিপোর্টার ॥
টাঙ্গাইলের ভূঞাপুরে এমপির সামনেই আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের হাতাহাতির ঘটনা ঘটেছে। শনিবার (২৯ অক্টোবর) দুপুরে ভূঞাপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ে জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন উপলক্ষে প্রস্তুতি সভায় এ ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ ঘটনায় পৌর শহরে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। সংঘর্ষ এড়াতে পৌর শহরে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

জানা যায়, বিগত ২০২১ সালে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে নিকরাইল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মাসুদুল হক মাসুদ, উপজেলা আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ সম্পাদক ফজল হক, সদস্য রফিক, আইয়ুব মোল্লা, মোন্নাফ আলী, শহিদুল ইসলাম তালুকদারকে বহিষ্কার করা হয়। আগামী (৭ নভেম্বর) টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন। সম্মেলনকে কেন্দ্র করে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এবং পৌরসভার মেয়র মাসুদুল হক মাসুদ ও সাধারণ সম্পাদক তাহেরুল ইসলাম তোতা স্থানীয় এমপি তানভীর হাসান ছোট মনিরকে না জানিয়ে তাদের বহিষ্কারাদেশ প্রত্যাহার ঘোষণা করেন। এ ঘটনায় জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ফজলুর রহমান খান ফারুক তাদের প্রত্যাহার আদেশ স্থগিত করেন।




শনিবার (২৯ অক্টোবর) দুপুরে দলীয় কার্যালয়ে আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌরসভার মেয়র মাসুদুল হক মাসুদ তার অনুসারী ও বহিষ্কৃত নেতাকর্মীদের নিয়ে সভা শুরু করেন। সভা চলাকালীন সংসদ সদস্য তানভীর হাসান ছোট মনির উপজেলা আওয়ামী লীগ ও জেলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দরা সভায় প্রবেশ করে। এ সময় বহিষ্কৃত নেতারা সামনের চেয়ারে বসা ছিলেন। তাদের সেখানে থেকে উঠতে বললে দুই পক্ষের তর্কবিতর্ক হয়। একপর্যায়ে উভয় পক্ষের মধ্যে হাতাহাতি ঘটনা ঘটে। পরে এমপি ও মেয়র পক্ষের বিক্ষুব্ধ নেতাকর্মীরা পাল্টাপাল্টি বিক্ষোভ মিছিল করে।




এ ঘটনায় ভূঞাপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও পৌরসভার মেয়র মাসুদুল হক মাসুদ বলেন, জেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলনকে সামনে রেখে উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের নিয়ে দলীয় কার্যালয়ে সভা শুরু করি। এমপি মহোদয় সভাস্থলে প্রবেশ করলে আমি তাকে বসতে আহ্বান জানাই। তিনি না বসে আমাকে পাশ কাটিয়ে সভাস্থল ত্যাগ করার সময় তার সঙ্গে আসা কিছু নেতাকর্মী হঠাৎ আমাদের নেতাকর্মীদের ওপর হামলা চালায়। পরে আমরা সভাস্থল ত্যাগ করে চলে আসি। এ ঘটনায় আমাদের ৬ জন নেতাকর্মী আহত হয়েছে।

এ বিষয়ে স্থানীয় সংসদ সদস্য তানভীর হাসান ছোট মনির বলেন, যারা দলের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়ে দলীয় প্রার্থীকে হারিয়েছে সেই সব বহিষ্কৃত নেতাদের নিয়ে মেয়র সভায় সামনের চেয়ারে বসিয়েছে। বহিষ্কৃতরা আওয়ামী লীগের সভায় কোনোভাবেই যোগ দিতে পারে না। জেলা ও উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ যাওয়ার পরও তারা চেয়ার ছেড়ে দেয়নি। এ নিয়ে কর্মীদের মাঝে ক্ষোভ থেকে হট্টগোলের সৃষ্টি হয়।




এ ব্যাপারে ভূঞাপুর থানার (ওসি) ফরিদুল ইসলাম জানান, উভয়পক্ষের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটেছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত। এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত কেউ থানায় অভিযোগ করেনি।

 

 

ব্রেকিং নিউজঃ