বিটেকে শিক্ষার্থীদের নেটওয়ার্ক বিড়ম্বনা কাটছে

165

2বিটেক সংবাদদাতাঃ
শিক্ষার্থীদের সীমাহীন দুর্ভোগ শেষে অবশেষে টাঙ্গাইলের কালিহাতীতে বঙ্গবন্ধু টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজ (বিটেক) ক্যাম্পাস সংলগ্ন এরিয়ায় মোবাইল কোম্পানির টাওয়ার স্থাপন করা হচ্ছে। এর ফলে নেটওয়ার্ক বিড়ম্বনার হাত থেকে রেহাই পেতে চলেছেন বিটেক শিক্ষার্থীরা।
প্রকল্প সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা জানান, শিক্ষার্থীদের অসুবিধার কথা বিবেচনা  করে দেশের শীর্ষ মোবাইল অপারেটর প্রতিষ্ঠান গ্রামীণফোন এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ইতোমধ্যে গ্রামীণফোনের এই টাওয়ারের অবকাঠামোগত নির্মাণ কাজ শেষ। এখন শুধুমাত্র মেশিনপত্র সংযোজনের কাজ চলছে।
জানা গেছে, গত ২০১৪ সালে নিজস্ব ক্যাম্পাসে আসার পর থেকেই শিক্ষার্থীদের নেটওয়ার্ক ভোগান্তির শিকার হতে হয়। বেশ ক’বার বিভিন্ন মোবাইল অপারেটরকে বিষয়টি অবহিত করলেও তারা বাস্তবায়ন ব্যতি রেখে শুধুমাত্র প্রতিশ্রুতি দিয়েই চলে। এদিকে বিটেক শিক্ষার্থীসহ এলাকাবাসীর ভোগান্তির কথা জানিয়ে বিভিন্ন গণমাধ্যম সংবাদ প্রকাশ করে।
২য় বর্ষের শিক্ষার্থী জয়ন্ত সরকার বলেন, “বর্তমানে এই এলাকায় শুধুমাত্র রবির টাওয়ার রয়েছে। এখন গ্রামীনফোন সংযুক্ত হওয়ার পথে। তবে অন্যান্য মোবাইল অপারেটররা শীঘ্রই টাওয়ার বসালে তাদের ইউজাররা খুবই উপকৃত হবে।”
সাইট ইঞ্জিনিয়ার খোরশেদ আলম জানান, “ট্রান্সফর্মারজনিত জটিলতার জন্যে টাওয়ারটি চালু করতে বেগ পেতে হচ্ছে। এ বিষয়ে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সাথে কথাবার্তা চলছে। আশা করা যাচ্ছে, টাওয়ারটি পূর্ণাঙ্গভাবে চালু হতে আরও মাস দেড়েকের মতো সময় লাগতে পারে।”
উল্লেখ্য, টাওয়ারটি মূল ক্যাম্পাস এরিয়ায় স্থাপনের কথা থাকলেও শেষ পর্যন্ত মন্ত্রনালয়ের নানা বিধি নিষেধের গ্যাঁড়াকলে পড়ায় শেষ পর্যন্ত আর মূল ক্যাম্পাস এরিয়ায় স্থাপন করা যায়নি। তবে ক্যাম্পাসের বাইরে হলেও গ্রামীণফোন ব্যবহারকারীদের দ্রুতই কষ্টের অবসান ঘটবে বলে মনে করছেন শিক্ষার্থীরা।

ব্রেকিং নিউজঃ