নাগরপুর উপজেলা বিএনপির দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত

173

নাগরপুর প্রতিনিধি ॥
টাঙ্গাইলের নাগরপুরে দীঘ দুই যুগ পর উপজেলা বিএনপির দ্বি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। সম্মেলনে বিনা প্রতিদ্বন্দীতায় সাধারণ সম্পাদক পদে হাবিবুর রহমান হবি নির্বাচিত হন। সরাসরি ভোটে সভাপতি নির্বাচিত হন এম এ সাালাম। শুক্রবার (৭ অক্টোবর) সকালে উপজেলা বিএনপির উদ্যোগে দলীয় কার্যালয়ে এ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

সম্মেলনকে ঘিরে দলীয় নেতাকর্মীদের মাঝে ব্যাপক উৎসহ উদ্দিপনা সৃষ্টি হয়। তৃনমূল নেতাকর্মী ও সমর্থকদের মাঝেও দেখা দেয় ব্যাপক প্রাণ চাঞ্চল্য। দলীয় কার্যালয়ের সামনে দিনভর সর্বত্র সাজসাজ রব বিরাজ করে। সকাল থেকে তৃনমূল নেতাকর্মী ও সমর্থকরা খন্ড খন্ড মিছিল নিয়ে সম্মেলনে যোগদান করতে থাকে। সম্মেলনস্থল কানায় কানায় ভরে যায়।


(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

সকাল ১১টার দিকে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ সভামঞ্চে আসেন। সম্মেলনে প্রধান অতিথি ও উদ্বোধক হিসেবে বক্তব্য রাখেন, বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ও জেলা বিএনপির আহ্বায়ক অ্যাডভোকেট আহমেদ আযম খান।

উপজেলা বিএনপির আহ্বায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা এম এ সালামের সভাপতিত্বে ও উপজেলা বিএনপির সদস্য সচিব হাবিবুর রহমান হবির সঞ্চালনায় সম্মেলনে আরো বক্তব্য রাখেন, জেলা বিএনপির সদস্য অ্যাডভোকেট আলী ইমাম তপন, যুগ্ম আহ্বায়ক হাসানুজ্জামিল শাহিন, অ্যাডভোকেট ফরহাদ ইকবাল, দেওয়ান শফিকুল ইসলাম, নাগরপুর উপজেলা বিএনপির সদস্য রবিউল আওয়াল লাভলু প্রমুখ। এ সময় জেলা ও উপজেলা বিএনপির শীর্ষ পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ ও ১২ ইউনিয়ন বিএনপি কাউন্সিলরা উপস্থিত ছিলেন।

দুপুরের পরে দ্বিতীয় অধিবেশন শুরু হয়। সাধারণ সম্পাদক পদে দ্বিতীয় কোন প্রার্থী না থাকায় উপজেলা বিএনপির সদস্য সচিব হাবিবুর রহমান হবি বিনা প্রতিদ্বন্দীতায় সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন। সভাপতি পদে চার জন প্রতিদ্বন্ধিতা করেন। উপজেলা বিএনপির আহবায়ক বীর মুক্তিযোদ্ধা এম এ সালাম ২৮ ভোট পেয়ে সভাপতি নির্বাচিত হন। অপর তিন প্রার্থী যুগ্ন আহবায়ক আহমেদ আলী রানা ১৬ ভোট, উপজেলা বিএনপির সদস্য অ্যাডাভোকেট ইকবাল হোসেন খান ১৩ ভোট, যুগ্ন আহবায়ক খন্দকার ওয়াহেদ মুরাদ পান ৮ ভোট। ইউনিয়ন বিএনপির পাঁচজন করে ১২টি ইউনিয়নে ১৩টি কমিটির মোট ৬৫ জন ভোটার তাদের ভোটাধীকার প্রয়োগ করেন।


(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

১৯৯৭ সালে উপজেলা বিএনপির সর্বশেষ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছিল। এরপরে ২০০৯ সালে সাবেক মন্ত্রী অ্যাডভোকেট. গৌতম চক্রবর্তীকে আহ্বায়ক ও বীর মুক্তিযোদ্ধা এম এ সালামকে সিনিয়র যুগ্ম-আহ্বায়ক করে ৭১ সদস্য বিশিষ্ট উপজেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটি গঠন করা হয়। সর্বশেষে চলতি বছর এম এ সালামকে আহ্বায়ক ও হাবিবুর রহমান হবিকে সদস্য সচিব করে ফের উপজেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটি গঠন করা হয়।

জেলা বিএনপির আহবায়ক অ্যাডভোকেট আহমেদ আযম খান বলেন, আহবায়ক কমিটি গঠনের প্রায় ছয় মাসের মধ্যে উপজেলা বিএনপির সম্মেলনের মাধ্যমে গনতান্ত্রিক পন্থায় সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক নির্বাচন করা হয়েছে। আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে পুর্নাঙ্গ কমিটি গঠন করা।

ব্রেকিং নিউজঃ