দেলদুয়ারে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকের উপর হামলা

221

 

স্টাফ রিপোর্টার ॥
টাঙ্গাইলের দেলুদয়ার উপজেলার আটিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক কৃঞ্চকান্ত দে সরকারকে পিটিয়ে আহত করা হয়েছে। রোববার (২৬ জুন) দুপুরে সিলিমপুর বেবিস্ট্যান্ডে তাকে বেদম মারপিট করা হয়। আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। কৃঞ্চকান্ত দে সরকার গত ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আটিয়া ইউনিয়ন পরিষদে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী হিসেবে চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন করে পরাজিত হন।

 

কৃঞ্চকান্ত দে সরকার বলেন, গত ১৫ জুন ইউপি নির্বাচনে আমি আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দিতা করি। ওই নির্বাচনে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক কোষাধ্যক্ষ হাবিবুর রহমান হাবিব, আটিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের বহিস্কৃত সহ-সভাপতি কামরুল ইসলাম কফি, সহ প্রচার সম্পাদক ওহাব আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী সাজ্জাদ হোসেন আজাদের ঘোড়া প্রতিকের পক্ষে অবস্থান নিয়ে নির্বাচন করে। এ নিয়ে সামাজিক যোগযোগ মাধ্যমে লেখালেখি হয়। এ ঘটনায় তারা আমার উপর ক্ষিপ্ত হয়। রোববার (২৬ জুন) বেলা তিনটার দিকে মোটরসাইকেল নিয়ে বাড়ি যাওয়ার সময় সিলিমপুর বেবিস্ট্যান্ডে আমার গতি রোধ করে তারা বেদম মারপিট করে। এ সেময় আমার স্ত্রী এগিয়ে আসলে তাকেও মারপিট করা হয়। আমি এই হামলার জন্য হাবিব, কফি ও ওহাবের দৃষ্টান্তমুলক শাস্তি চাই।

 

দেলদুয়ার উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শিবলী সাদিক বলেন, জড়িতদের বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
দেলদুয়ার থানার ওসি নাসির উদ্দিন মৃধা বলেন, খবর শুনে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। সেখানে অনেকেই বলেছেন উভয় পক্ষই হতাহাতি করেছেন। কেউ অভিযোগ দিলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ব্রেকিং নিউজঃ