দেওহাটা-ধানতারা আঞ্চলিক সড়কে দ্রুতগতিতে চলছে পাঁকাকরণ কাজ

135

স্টাফ রিপোর্টার//
টাঙ্গাইলের মির্জাপুরের দেওহাটা-ধানতারা আঞ্চলিক সড়কের ৮ কিলোমিটার সড়ক পাঁকাকরণ কাজ দ্রুতগতিতে এগিয়ে চলছে। দীর্ঘদিন ধরে উপজেলার তিন উপজেলাবাসীর ভোগান্তির আরেক নাম দেওহাটা-ধানতারা সড়কটি। স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তরের তত্তাবধানে সরকটির পাঁকাকরণ কাজ দ্রুতগতিতে এগিয়ে চলছে। এই পাঁকাকরণ কাজ শেষ হলে উপজেলার তিন ইউনিয়নবাসীর পাশাপাশি জনভোগান্তি দূর হবে পার্শ্ববর্তী চার উপজেলার মানুষের।
উপজেলা প্রকৌশলীর কার্যালয় সূত্র জানায়, মির্জাপুর উপজেলার দেওহাটা-ধানতারা-ধামরাই সড়কের দেওহাটা হতে বিলগজারিয়া পর্যন্ত প্রায় ৮ কিলোমিটারের আঞ্চলিক সড়ক এটি। এর আগে ২০১৮ সালে দেওহাটা-ধানতারা সড়কের ৪ কিলোমিটার সংস্কার কাজ হয়। যাতে ব্যয় হয়েছিল ৮৩ লাখ টাকা। তবে কিছুদিনের মধ্যেই সড়কটি চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়ে।
আবারও সড়কটি সংস্কারের জন্য দুইটি ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। ইতোমধ্যে একভাগের ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান ইউনুছ অ্যান্ড ব্রাদার্স প্রাইভেট লিমিটেড কোম্পানি ৮ কোটি ৫৬ লাখ ৩১ হাজার টাকা ব্যয়ে ২ হাজার ৫৫০ মিটার আরসিসির কাজ শুরু করেছে।





জানা গেছে, দেওহাটা-ধানতারা আঞ্চলিক সড়কটি সংস্কারের তিন বছরের মধ্যেই চলাচলের অযোগ্য হয়ে পড়ে। সেসময় নিম্নমানের কাজের জন্য সংস্কারের শুরুতেই উঠে গিয়েছিল সড়কের কার্পেটিং। ভাঙা রাস্তায় দিন-রাত মাটি, ইট ও পণ্যবাহী শত শত ট্রাক চলাচল করায় জনজীবন অতিষ্ঠ হয়ে উঠে। এলজিইডি কর্তৃপক্ষের দাবি ভারী যানবাহন চলাচলের উপযোগী করে নতুন সড়ক নির্মাণের কাজ শুরু হয়েছে। এই নির্মাণকাজ শেষ হলে মির্জাপুর, কালিয়কৈর, ধামর্ইা ও সাটুরিয়া উপজেলার মানুষের ভোগান্তি দুর হবে।
স্থানীয়রা বলছে, কয়েক বছর আগে সড়কের সংস্কার কাজ করা হয়েছিল। কিন্তু সড়কটি বেশিদিন টিকেনি। নিম্নমানের কাজ আর ইটভাটার ট্রাক চলাচল করায় এখন সড়কের বেহাল দশা। আবার কাজ শুরু হয়েছে। দ্রæতগতিতে কাজ চলছে। কাজ শেষ হলে আমাদের ভোগান্তি দুর হবে।




উপজেলার বহুরিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবু সাইদ মিয়া বলেন, দীর্ঘদিন পর সড়কের সংস্কার কাজ শুরু হয়েছে। এই সড়কের গুরুত্বপূর্ণ অংশে আরসিসির কাজ করা হচ্ছে। এতে সহজেই সড়ক নষ্ট হবে না। সড়কটির কাজ দ্রæত শেষ হলে মানুষের ভোগান্তি দুর হবে।
মির্জাপুর উপজেলা প্রকৌশলী মো. আরিফুর রহমান বলেন, প্রায় ২০ কোটি টাকা ব্যয়ে দুই ভাগে সড়কের সংস্কার কাজ শুরু হয়েছে। তবে সড়ক সংস্কারে বিভিন্ন সমস্যার সৃষ্টি হচ্ছে। এরই মধ্যে স্থানীয় কিছু ইটভাটা কর্তৃপক্ষ এবং শ্রমিকদের সাথে সড়কের কাজ নিয়ে ভূল বুঝাবুঝির সৃষ্টি হয়। পরে খোজ নিয়ে দেখা গেছে কাজের গুণগত মান ঠিক আছে এবং এলজিইডির নিয়মেই কাজ এগিয়ে চলছে। নির্ধানিত সময়ের মধ্যে কাজ শেষ হবে বলে তিনি জানান।

 




ব্রেকিং নিউজঃ