টাঙ্গাইলে শতায়ু অঙ্গন ও দেহগড়ির প্রীতি ফুটবল ম্যাচ অনুষ্ঠিত

127

মোজাম্মেল হক ॥
প্রীতি ফুটবল ম্যাচে বির্তকিত পেনাল্টি গোলে শতায়ু অঙ্গন শরীরচর্চা ক্লাব (২-১) গোলে দেহগড়ি শরীর চর্চা ক্লাবের কাছে পরাজিত হয়েছে। শুক্রবার (২৮ অক্টোবর) সকালে টাঙ্গাইল কেন্দ্রীয় ঈদগাঁহ মাঠে শতায়ু অঙ্গন শরীরচর্চা ক্লাব আয়োজিত প্রীতি ফুটবল ম্যাচে শতায়ু অঙ্গনের প্রতিপক্ষ ছিলো দেহগড়ি শরীরচর্চা ক্লাব।

মাঠে খেলাধূলার বয়স পেরিয়ে যাওয়া স্বাস্থ্য সুরক্ষা বাহিনী প্রভাতের শরীরচর্চাবিদদের নিয়ে ফুটবল ম্যাচটি দেখতে প্রচুর দর্শক উপস্থিত ছিলো। বয়স বাড়লেও ফুটবল খেলার প্রতি আকর্ষন বিন্দুমাত্র কম নয় এই সৌখিন ও সাবেক ফুটবলারদের। খেলার শুরু থেকে আক্রমন পাল্টা আক্রমন করে দুই দলই খেলতে থাকে। খেলার ৪ মিনিটের সময় দূদার্ন্ত ফ্রি কিক থেকে দেহগড়ি শরীর চর্চা ক্লাবের নোমান গোল করে (১-০) দলকে এগিয়ে নেয়। খেলায় পিছিয়ে পড়ে শতায়ু অঙ্গন ক্লাব এক চেটিয়া আক্রমন করে খেলতে থাকলে খেলার ১০ মিনিটের সময় শতায়ু অঙ্গনের ইফতেখারুল অনুপমের দর্শনীয় ফ্রি কিকের বলে মাথা লাগিয়ে বাবু খান গোল করে (১-১) খেলায় সমতা আনলে প্রথমার্ধে আর গোল হয়নি।




খেলার দ্বিতীয়ার্ধের ২ মিনিটের সময় শতায়ু অঙ্গনের ডি-বক্সের ভিতর দেহগড়ির আক্রমনে বক্সের ভেতর শতায়ু ক্লাবের গোলরক্ষক বল ধরে ফেলে। এ সময় ডিফেন্ডার ও দেহগড়ির স্ট্রাইকারের ধাক্কায় শতায়ু ক্লাবের গোলরক্ষক ও ডিফেন্ডার পড়ে যায়। এ সময় ডিফেন্ডারের হাতে বল লাগে। এতে করে রেফারী মমিনুল ফাউলের বাশি না বাজিয়ে পেনাল্টির ঘোষনা করেন। এ ঘটনায় শতায়ু অঙ্গনের খেলোয়াড়দের প্রতিবাদকে উপেক্ষা করে রেফারি পেনাল্টির সিদ্ধান্তে অটল থাকে। পরে দেহগড়ি ক্লাবের রিফাত গোল করে (২-১) দলকে এগিয়ে নেয়। খেলায় শতায়ু অঙ্গন আক্রমন করে খেলেও কাঙ্খিত সমতাসূচক গোলের দেখা না পেলে পরাজিত হয়ে মাঠ ত্যাগ করে।




দু’দলে যারা খেলেছেন- শতায়ু অঙ্গন ক্লাব- আশরাফ, চঞ্চল (অধিনায়ক), গোবিন্দ, বাবু খান, ভূইয়া, রহমান, ইফতেখারুল অনুপম, শামীম, সুজিত, ছানোয়ার, পিন্টু, পিনাকী, দুলাল, দয়াল, উৎপল ও বিজয়।
দেহগড়ি শরীর চর্চা ক্লাব- সূব্রত, নোমান (অধিনায়ক), দরুল ইসলাম, শামিম আল আমিন, ইকবাল, সোহেল শিকদার, জহিরুল, রিফাত, শামীম আল মামুন, জরিপ, রফিকুল, লুৎফর ও গোলাম মোস্তফা।

ব্রেকিং নিউজঃ