টাঙ্গাইলে চাঁদাবাজির অভিযোগে নারী ইউপি সদস্য রিমান্ডে

193

স্টাফ রিপোর্টার:
টাঙ্গাইলে চাঁদাবাজির অভিযোগে কল্পনা আক্তার জয়ন্তী নামে এক নারী ইউপি সদস্যের এক দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত। বুধবার (০২ নভেম্বর) সন্ধ্যায় টাঙ্গাইলের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট শামসুল আলম রিমান্ড মঞ্জুর করেন। কল্পনা আক্তার জয়ন্তী সদর উপজেলার বাঘিল ইউনিয়নের ১,২ ও ৩ নং ওয়ার্ডের সংরক্ষিত আসনের ইউপি সদস্য।




পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, গত ৫ অক্টোবর বাঘিল ইউনিয়নের ফৈলার ঘোনা গ্রামের মজনু মিয়ার বিরুদ্ধে সাবেক স্ত্রীকে নির্যাতন করার অভিযোগে সদর থানায় মামলা করা হয়। সেই মামলা নিষ্পত্তি ও মজনু মিয়ার রিমান্ড মওকুফের জন্য নারী ইউপি সদস্য কল্পনা আক্তার জয়ন্তী মজনুর পরিবারের কাছে তিন লাখ টাকা দাবি করে। এক লাখ টাকা পরিশোধ করলেও বাকি দুই লাখ টাকার জন্য মজনুর পরিবারকে চাপ দেন কল্পনা আক্তার জয়ন্তী। পরে চাঁদাবাজির অভিযোগে মজনুর মা মর্জিনা বেগম বাদি হয়ে সদর থানায় মঙ্গলবার রাতে নারী ইউপি সদস্য কল্পনা আক্তার জয়ন্তী ও তার ছেলে মো. জনি মিয়ার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। পুলিশ বুধবার সকালে বাড়ি থেকে নারী ইউপি সদস্য কল্পনা আক্তার জয়ন্তী গ্রেফতার করে।




এ বিষয়ে সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আবু ছালাম মিয়া বলেন, দুপুরে কল্পনা আক্তার জয়ন্তীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সাত দিনের রিমান্ড আবেদন করে আদালতে পাঠানো হয়। পরে বিচারক এক দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। পরে তাকে সদর থানায় এক দিনের রিমান্ডে আনা হয়। তার ছেলে ও অপর আসামী জনি মিয়াকে গ্রেফতারের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।



ব্রেকিং নিউজঃ