কালিহাতীতে অবৈধ বালু উত্তোলনের মহোৎসব ॥ প্রশাসন নিরব

75

স্টাফ রিপোর্টার ॥
টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার সহদেবপুর ইউনিয়নের আকুয়া গ্রামের পৌলী নদীতে অবৈধ বাংলা ড্রেজার দিয়ে বালু উত্তোলনের মহোৎসব চলছে। এতে হুমকির মুখে রয়েছে শহর রক্ষাবাধ, সদর উপজেলার খলদবাড়ি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও বসতবাড়ী।




জানা যায়, উপজেলার আকুয়া গ্রামের ইউপি সদস্য শহিদুল ইসলাম, আওয়ামীলীগ নেতা রফিকুল ইসলাম বাবু, বিএনপি নেতা নুরুল ইসলাম, মান্দুরিয়া গ্রামের আনিস সহ ১টি বাংলা ড্রেজার বসিয়ে অবাধে বালু উত্তোলন চলাচ্ছে। হুমকীর মুখে পড়েছে খলদবাড়ি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, কয়েক কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত শহর রক্ষা বাঁধ ও বসতবাড়ি। প্রশাসনকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে প্রতিনিয়তই চালাচ্ছে এ বালু ব্যবসা। সরকারী ভাবে নদীর তলদেশ থেকে বালু উত্তোলন করা নিষিদ্ধ থাকলেও তার কোন তোয়াক্কা করছে না বালু খেকোরা।




স্থানীয় নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ব্যক্তি বলেন, বালু খেকোরা প্রভাবশালী হওয়ায় ভয়ে তাদের বিরুদ্ধে কেউ কিছু বলতে পারে না। কেউ প্রতিবাদ করলে তারা দাঙ্গা হাঙ্গামা ও মিথ্যা মামলা দিয়ে জেল হাজতের ভয় দেখায়। স্থানীয় এক কৃষক জানান, ইতিপূর্বে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মাঝেমধ্যেই অভিযান চালাতো তখন নদী থেকে অবৈধ ভাবে বালু উত্তোলনও কমে গিয়েছিল। বর্তমানে নির্বাহী কর্মকর্তা কোন অভিযান না চালানোর কারণে বালু খেকোরা বেপরোয়া হয়ে উঠছে। বালু উত্তোলন কারী ইউপি সদস্য শহিদুল ইসলাম বলেন, সরকারি রাস্তার কাজের জন্য বালু উত্তোলন করা হচ্ছে। তাই বালু তুলে রাস্তায় দিচ্ছি।




এ ব্যাপারে কালিহাতী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নাজমুল হোসেন জানান, বিষয়টি আমি অবগত ছিলাম না। এ বিষয়ে দ্রুত পদক্ষেপ গ্রহণ করবো।

ব্রেকিং নিউজঃ