এমপি রানা ও মেয়র মুক্তিকে গ্রেপ্তারে আর কোন আইনি বাধা নেই

178

pageস্টাফ রিপোর্টারঃ

টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগ নেতা মুক্তিযোদ্ধা ফারুক  আহমদ হত্যা মামলার আসামি টাঙ্গাইল-৩ আসনের সংসদ সদস্য আমানুর রহমান খান রানা ও তার ছোট ভাই টাঙ্গাইল  পৌরসভার মেয়র শহীদুর রহমান খান মুক্তিকে হয়রানি না করতে ও নিম্ন আদালতে আত্মসমর্পণ করতে হাইকোর্টের দেয়া আদেশ বাতিল করেছেন আপিল বিভাগ। বৃহস্পতিবার বিচারপতি নাজমুন আরা সুলতানার নেতৃত্বাধীন তিন সদস্যের আপিল বেঞ্চ এই আদেশ দেন।

এই আদেশের ফলে টাঙ্গাইলের আলোচিত মুক্তিযোদ্ধা ফারুক আহমদ হত্যা মামলার প্রধান দুই আসামিকে গ্রেপ্তারে আর কোন আইনি বাধা রইলো না।

আসামী পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট আব্দুল হাই। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল একরামুল হক টুটুল।

তিনি জানান, আপিল বিভাগের এই নির্দেশের ফলে টাঙ্গাইলের ঘাটাইলের এমপি রানা ও তার ভাই মেয়র মুক্তিকে গ্রেপ্তারে কোনো আইনি বাধা রইলো না।

উল্লেখ্য, ২০১৪ সালের ১৮ জানুয়ারি টাঙ্গাইল জেলা আওয়ামী লীগেরর প্রভাশালী নেতা নেতা বীর মুক্তিযোদ্ধা ফারুক আহমদকে হত্যা করা হয়। কলেজপাড়া এলাকার  বাসার কাছ থেকে পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে।

এ ঘটনায় নিহতের স্ত্রী নাহার আহমদ বাদী হয়ে অজ্ঞাত পরিচয় ব্যক্তিদের আসামি করে টাঙ্গাইল সদর মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন।

স্থানীয় সূত্রগুলো জানায়, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক পদে অন্যতম প্রার্থী ছিলেন ফারুক আহমদ। তার জয়ী হওয়ার ব্যাপক সম্ভাবনা ছিল। রানা এমপি’র ভাই পৌর মেয়র শহীদুর রহমান মুক্তিও সাধারণ সম্পাদক হওয়ার আগ্রহ প্রকাশ করেন।

জানা যায়, ঘটনার দিন ফারুক আহমদকে রানা এমপি’র টাঙ্গাইলের অফিসে ডেকে আনা হয়েছিল। এবং সেখানেই তাকে হত্যা করা হয়।

পরে পুলিশে এই হত্যাকান্ডের তদন্তে নামে। এক আসামীর স্বীকারোক্তিতে এই হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে এমপি রানা ও তার তিন ভাইয়ের সংশ্লিষ্টতার তথ্য বেরিয়ে আসে। পরে ওই চারজনকে মামলার আসামি করা হয়।

আসামী হওয়ার পর রানা ও মুক্তি লোকচক্ষুর অন্তরালে চলে যান। এক পর্যায়ে তারা হাইকোর্টে জামিন আবেদন করেন। গত ১৪ জুলাই বিচারপতি ফরিদ আহাম্মদ ও বিচারপতি মোহাম্মাদ উল্লাহের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্টের অবকাশকালীন হাইকোর্ট বেঞ্চ ওই দুইজনকে দুই সপ্তাহের মধ্যে আত্মসর্মপণের নির্দেশ দেন। ওই সময়ে মধ্যে তাদের গ্রেপ্তার না করার নির্দেশনা দেয়া হয়।

পরে ওই নির্দেশনার বিরুদ্ধে আপিল করেন রাষ্ট্রপক্ষ। বৃহস্পতিবার সেই আপিলের শুনানি শেষে রায় দেয়া হলো।

 

ব্রেকিং নিউজঃ