Oops! It appears that you have disabled your Javascript. In order for you to see this page as it is meant to appear, we ask that you please re-enable your Javascript!

আওয়ামী লীগ ৮টি, বিদ্রোহী ৩টি, বিএনপির বহিস্কৃত একটিতে জয়লাভ করেছে

শেয়ার করুন

এম কবির ॥
পঞ্চম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের চতুর্থ ধাপে রোববার (৩১ মার্চ) টাঙ্গাইলের ১২টি উপজেলায় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। নির্বাচনে বেসরকারী ফলাফলে আওয়ামী লীগ ৮টি, আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী ৩টি এবং বিএনপির বহিস্কৃত প্রার্থী একটিতে জয়লাভ করেছে।
বিজয়ী চেয়ারম্যান প্রার্থীরা হলেন-
টাঙ্গাইল সদর উপজেলায় জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক শাহজাহান আনছারী (নৌকা) ৫৯,৯৬৭ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি স্বতন্ত্র প্রার্থী আজগর আলী (ঘোড়া) ৩৭,৭৯৫ ভোট পেয়েছেন। তৃতীয় হয়েছেন আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী খোরশেদ আলম (আনারস)। তিনি পেয়েছেন ২৪,৭৩৮ ভোট।
ভূঞাপুর উপজেলায় আওয়ামী লীগের প্রার্থী আব্দুল হালিম (নৌকা) ২০,৬৮০ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী আমিরুল ইসলাম তালুকদার বিদ্যুত (মোটরসাইকেল) ১৫,৯১৪ ভোট পেয়েছেন।
নাগরপুর উপজেলায় স্বতন্ত্র প্রার্থী ও বিএনপির বহিস্কৃত আব্দুছ ছামাদ দুলাল (ঘোড়া) ৩৫,৮৪৫ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আওয়ামী লীগের প্রার্থী কুদরত আলী (নৌকা) ২৮,৩৭২ ভোট পেয়েছেন।
ঘাটাইল উপজেলা আওয়ামী লীগের আহবায়ক শহিদুল ইসলাম লেবু (নৌকা) ৬৪,১০৫ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি স্বতন্ত্র মুহাম্মদ আরিফ হোসেন (আনারস) ২৯,৮৮৭ ভোট পেয়েছেন।
দেলদুয়ার উপজেলায় জেলা আওয়ামী লীগের উপ-প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক এবং আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী মাহমুদুল হাসান মারুফ (আনারস) ২৬,৯৯০ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আওয়ামী লীগের প্রার্থী ফজলুল হক (নৌকা) ১৫,৮৫৭ ভোট পেয়েছেন।
মির্জাপুর উপজেলায় আওয়ামী লীগ প্রার্থী ও বর্তমান উপজেলা চেয়ারম্যান মীর এনায়েত হোসেন মন্টু (নৌকা) ৬৭,১০২ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী জেলা বিএনপির সদস্য ফিরোজ হায়দার খান (মোটরসাইকেল) ৩৫,১০০ ভোট পেয়েছেন।
সখীপুর উপজেলায় আওয়ামী লীগ প্রার্থী জুলফিকার হায়দার কামাল লেবু (নৌকা) ৫০,০৫১ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী অধ্যক্ষ আবু সাঈদ মিয়া (আনারস) ৩৬,৪৩৬ ভোট পেয়েছেন।
কালিহাতী উপজেলায় আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আনছার আলী বি.কম (আনারস) ৬৬,০২৭ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এবং বর্তমান উপজেলা চেয়ারম্যান মোজহারুল ইসলাম তালুকদার ঠান্ডু (নৌকা) ২৭,৮৪৯ ভোট পেয়েছেন।
বাসাইল উপজেলায় আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান কাজী অলিদ ইসলাম (আনারস) ৩৫,৩৬১ ভোট পেয়ে জয়লাভ করেছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মতিয়ার রহমান গাউস (নৌকা) ৮,৭৮১ ভোট পেয়েছেন।
এছাড়া ধনবাড়ী উপজেলায় আওয়ামী লীগ মনোনিত চেয়ারম্যান প্রার্থী হারুনার রশিদ হীরা (নৌকা), মধপুর উপজেলায় আওয়ামী লীগ মনোনিত চেয়ারম্যান প্রার্থী ছরোয়ার আলম খান আবু (নৌকা), গোপালপুর উপজেলায় আওয়ামী লীগ মনোনিত চেয়ারম্যান প্রার্থী ইউনুছ ইসলাম তালুকদার ঠান্ডু (নৌকা) বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন।

শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

ব্রেকিং নিউজঃ