মির্জাপুরে শিশুকে শ্লীলতাহানির কথিত অভিযোগে একজনকে প্রকাশ্যে পিটিয়ে হত্যা

শেয়ার করুন

স্টাফ রিপোর্টার, মির্জাপুর ॥
টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে ছয় বছরের এক শিশুর শ্লীলতাহানির কথিত অভিযোগে শাহিন মোল্লা (৩৮) নামে এক ব্যাক্তিকে প্রকাশ্যে মাঠে পিটিয়ে হত্যা করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। শুক্রবার (৭ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যার দিকে মির্জাপুর উপজেলার বানাইল ইউনিয়নের মাঝালিয়া গ্রামের স্কুল মাঠে এ ঘটনা ঘটেছে। পরে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। নিহত শাহিন মাঝালিয়া গ্রামের মৃত সৈয়দ মোল্লার ছেলে। সে পেশায় কাঁচামালের ব্যবসায়ী ছিলেন।
বৃহস্পতিবার (৬ সেপ্টেম্বর) বিকেলে পাশ্ববর্তী বাড়ির ছয় বছরের এক শিশু শাহিন মোল্লার ফ্রিজে দুধের বোতল রাখতে গেলে সে তার শ্লীলতাহানির চেষ্টা চালায়। এমন কথিত অভিযোগে শুক্রবার (৭ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় ওই গ্রামের সুমন, অয়ন, ইজাজ বিচারের কথা বলে তাকে ডেকে মাঠে নিয়ে যায়। সেখানে বিচার না করে সুমন, অয়ন, ইজাজসহ তাদের সঙ্গীরা প্রকাশ্যে লাঠিসোটা নিয়ে শাহিন মোল্লাকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। এ সময় শাহিনের স্ত্রী রেহেনা বেগম এবং ওই গ্রামের বাসিন্দা শাহিনের নিকট আত্মীয় অবসরপ্রাপ্ত পুলিশের এএসআই আমজাদ হোসেন বাঁধা দিলেও তারা তাকেও পিটিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। আহত শাহিন পানি পানি করে চিৎকার করলেও তারা তাদের পানি দিতে দেয়নি। এ সময় ভ্যানে করে হাসপাতালে আনতে গেলেও তারা বাঁধা দেয় বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।
পরে থানা পুলিশকে খবর দিলে মির্জাপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মোহাম্মদ নাসিম ঘটনাস্থলে গিয়ে গুরুতর অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা জামুর্কী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে রাতেই মির্জাপুর কুমুদিনী হাসপাতালে আনা হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক শাহিন মোল্লাকে মৃত ঘোষণা করেন।
এ ব্যাপারে মির্জাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ কে এম মিজানুল হক ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে টিনিউজকে বলেন, তদন্ত স্বাপেক্ষে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

ব্রেকিং নিউজঃ