Oops! It appears that you have disabled your Javascript. In order for you to see this page as it is meant to appear, we ask that you please re-enable your Javascript!

বৃষ্টিতে শহরের রাস্তায় জলাবদ্ধতা ॥ দূর্ভোগ চরমে

শেয়ার করুন

নোমান আব্দুল্লাহ ॥
বৃষ্টিতে টাঙ্গাইল শহরে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। বৃহস্পতিবার (১১ জুলাই) বিকেল ৫টার পর থেকে টানা বৃষ্টি পড়ছে। আর এতে টাঙ্গাইল শহর ও শহরতলীর সকল সড়কেই হাটু সমান জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। এতে করে করে কর্মজীবী মানুষরা সড়কগুলো দিয়ে বাড়ী ফিরতে পারছে না। সেই সাথে নেই কোন যানবাহন। চরম বিপাকে পড়েছেন সাধারণ জনগণ। জলাবদ্ধতার কারণে চরমে দুর্ভোগে পড়েছেন সকলেই।
জানা যায়, অপরকিল্পিত ড্রেনেজ ব্যবস্থা, লৌহজং নদী ও শ্যামা বাবুর খাল দখল করার কারণেই জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হচ্ছে বলে শহরবাসীর অভিযোগ। আবহাওয়া অফিস জানায়, বিকাল ৫টা থেকে যে বৃষ্টিপাত হচ্ছে, তার পরিমাপ এ সময়ে ৪৫ মিলিমিটার।
সরেজমিনে ঘুরে দেখা যায়, বিকাল থেকে বৃষ্টি ঝড়ছে অঝোড়ে। এতে করে শহরের কলেজ পাড়া, প্যারাডাইস পাড়া, আমঘাট রোড, পার্ক বাজার রোড, সাহা পাড়া, আকুরটাকুর পাড়া, মুসলিম পাড়া, বেতকা, আদালত পাড়াসহ অন্যান্য গুরুত্ব সড়কে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হয়েছে। এতে সাধারণ মানুষের চলাচলে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হয়েছে।

পথচারী শরিফুল ইসলাম টিনিউজকে বলেন, বৃষ্টিতে রাস্তায় পানি জমেছে হাটু সমান। রাস্তায় জমে থাকা নোঙরা পানিতেই চলাচল করতে হচ্ছে। এছাড়া গাড়ি চলাচল করলে ড্রেনের ময়লা পানি ছিটে গায়ে লাগছে। যে কারণে পায়ে হেটে যেতে দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। আর সে সুযোগ বুঝে রিকশাওয়ালারাও দ্বিগুণ ভাড়া হাকাচ্ছেন। বাজার এলাকার বাসিন্দা বিএইচ সজল ও হাসানুর রহমান তানজীর টিনিউজকে বলেন, বৃষ্টিতে এলাকার অধিকাংশ রাস্তা তলিয়ে গেছে। রাস্তায় ড্রেনের ময়লা-আবর্জনা পানির সঙ্গে উঠে এসেছে। শিক্ষক আশরাফ উজ জামান টিনিউজকে জানান, পূর্ব থেকেই পৌর শহর অপরিকল্পিত ড্রেনেজ ব্যবস্থা। সেই সঙ্গে ময়লা আবর্জনা ড্রেনে ফেলার কারণে ড্রেনে ময়লা-আবর্জনা, মাটি জমাট বাঁধছে। কিন্তু টাঙ্গাইল পৌরসভার পক্ষ থেকে প্রতিনিয়ত এগুলো পরিস্কার করার কথা থাকলেও তা করছে না।
ব্যবসায়ী আলতাফ হোসেন টিনিউজকে বলেন, শহরের পানিগুলো ড্রেন, খাল দিয়ে নদীতে চলে যায়। কিন্তু খাল ও নদী দখলের কারণে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি হচ্ছে। ভুক্তভোগী সাধারণ জনগন টিনিউজকে বলেন, লৌহজং নদী, শ্যামা বাবুর খাল দখলমুক্ত করার জন্য রাজনৈতিক নেতারা শুধুমাত্র প্রতিশ্রুতির মধ্যেই সীমাবদ্ধ থাকেন। পরিকল্পিতভাবে ড্রেনেজ ব্যবস্থা গড়ে তোলা, খাল দখলমুক্ত করা ও প্রতিনিয়ত ড্রেনের ময়লা-আবর্জনা ও জমাটবাঁধা মাটি পরিষ্কার করা অত্যন্ত জরুরী। এছাড়া পৌরসভার কাউন্সিলররাও তাদের দায়িত্ব সঠিকভাবে পালন করছে না। জলাবদ্ধতা নিরসনকল্পে ড্রেন নির্মাণ, ড্রেনের পেড়ী মাটি উত্তোলনসহ পরিস্কার, পরিচ্ছনতার কাজ না করায় জনগনের ভোগান্তি পোহাতে হয়।

শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

ব্রেকিং নিউজঃ