Oops! It appears that you have disabled your Javascript. In order for you to see this page as it is meant to appear, we ask that you please re-enable your Javascript!

বাসাইলে ধান ক্ষেতে আলোক ফাঁদ কর্মসূচী

শেয়ার করুন

বাসাইল সংবাদদাতা ॥
টাঙ্গাইলের বাসাইল উপজেলা কৃষি সম্পাসরণ অধিদপ্তরের তত্বাবধানে ধান ক্ষেতের শত্রু পোকা-মাকড় নির্ণয় ও নিধনের অংশ হিসেবে ধান ক্ষেতে আলোক ফাঁদের কার্যক্রম চালানো হয়েছে। রবিবার (২৩ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় উপজেলার কাশিল ইউনিয়নের বাংড়া বাজারের পাশে ধানের জমিতে এ কার্যক্রম চালানো হয়।
উপজেলা কৃষি অফিস সুত্রে জানা যায়, কৃষকরা সাধারণত না জেনে বুঝে ধান ক্ষেতে পোকা-দমনের জন্য অযথা টাকা খরচ করেন। কারণ ধান ক্ষেতে যেমন শত্রু পোকা রয়েছে তেমনি বন্ধু পোকাও ধান ক্ষেতে থাকে। তাই আমরা কৃষকদের সচেতনতা ও অযথা অর্থনৈতিক ব্যয় হতে বাঁচানোর উদ্দ্যেশে বিশাল ধান ক্ষেত জুড়ে ক্ষতিকারক পোকা নির্ণয়ের জন্য আলোক ফাঁদ পরীক্ষা চালিয়ে থাকি। ধান ক্ষেতে পরীক্ষা চালানোর সময় দেখা যায়, দুই-চারটি ক্ষতিকারক পোকার উপস্থিত ছাড়া আলোক ফাঁদে তেমন অন্য কোন পোকার উপস্থিতি চোখে পড়েনি ।
উক্ত আলোক ফাঁদ কার্যক্রমে উপস্থিত ছিলেন বাসাইল উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান রাশেদা সুলতানা রুবী, কৃষি সম্প্রাসারণ অফিসার রুপালী খাতুন, উপ-সহকারী কৃষি অফিসার হাবিবুর রহমানসহ অন্যান্য উপ-সহকারী কৃষি অফিসারবৃন্দ। এ সময় প্রায় ৫০জন কৃষক উপস্থিত ছিলেন।
এ বিষয়ে বাসাইল উপজেলা কৃষি অফিসার আব্দুল্লাহ আল ফারুক টিনিউজকে জানান, প্রতি রবিবার বাসাইল উপজেলার সকল ব্লকে এই আলোক ফাঁদ কর্মসূচি উপ-সহকারী কৃষি অফিসাররা করে থাকে। কৃষকদের বাড়তি খরচ বাঁচানোর এবং ভাল ধান পাওয়ার উদ্দেশ্যে আমরা এ কর্মসুচি চালিয়ে যাচ্ছি। এগুলো আমাদের চলমান কার্যক্রম।

শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

ব্রেকিং নিউজঃ