Oops! It appears that you have disabled your Javascript. In order for you to see this page as it is meant to appear, we ask that you please re-enable your Javascript!

ধনবাড়ীতে সাড়া ফেলেছে “বিবেকের দেয়াল”

শেয়ার করুন

আব্দুল্লাহ আবু এহসান, ধনবাড়ী ॥
টাঙ্গাইলের ধনবাড়ীতে সাড়া ফেলেছে “বিবেকের দেয়াল”। ধনবাড়ী ইয়ূথ ক্লাব নামের একটি সামাজিক সংগঠন প্রতিষ্ঠা করেছে এই বিবেকের দেয়াল। অনেকেই কাপড়-চোপড়সহ অন্যান্য প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র স্বেচ্ছায় রেখে যাচ্ছেন এ বিবেকের দেয়ালে। স্বেচ্ছায় রেখে যাওয়া এসব জিনিসপত্র প্রয়োজন ও পছন্দমত যে কেউ বিনাদ্বিধায় নিতে পারছেন।
জানা যায়, ইয়ূথ ক্লাব মাত্র একটি কাপড় দিয়ে বিবেকের দেয়ালের কার্যক্রম সপ্তাহ খানেক আগে শুরু করলেও এখন কাপড়-চোপড়সহ অনেক জিনিসপত্র জড়ো হয়েছে। ইতিমধ্যেই দেয়ালটি এলাকায় ব্যাপকভাবে সাড়া ফেলেছে ।
এ ব্যাপারে ধনবাড়ী ইয়ূথ ক্লাবের সহ-সভাপতি রাকিব হাসান টিনিউজকে বলেন, অন্যত্র মানবতার দেয়াল দেখার পর ভালো লাগায় ধনবাড়ীতে “বিবেকের দেয়াল” স্থাপন করি। যেটি ধনবাড়ী আসিয়া হাসান আলী মহিলা কলেজের দেয়াল জুড়ে অবস্থিত। আমাদের লক্ষ্য ধনবাড়ীর মূল পয়েন্ট এবং উপজেলার প্রায় সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বিবেকের দেয়াল স্থাপন করা। যার ফলে কোমলমতি শিক্ষার্থী থেকে শুরু করে সকলের বিবেক জাগ্রত হবে বলে আমার বিশ্বাস।
ধনবাড়ী ইয়ূথ ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাতুল ইয়াকিন সকলের সর্বাত্মক সহযোগিতা কামনা করে টিনিউজকে বলেন, যদি বিত্তবানরা এগিয়ে আসেন তাহলে বিবেকের দেয়াল স্বার্থক হবে এবং সমাজের পিছিয়ে পড়া মানুষ এখান থেকে সহযোগিতা পাবে।
ধনবাড়ী উপজেলা মানবাধিকার বাস্তবায়ন সংস্থার সভাপতি আব্দুল্লাহ আবু এহসান খোকন টিনিউজকে বলেন, বিবেকের দেয়াল স্থাপন একটি মহতি উদ্যোগ ও ভালো কাজ। এখান থেকে গরীব দুঃখি মানুষ উপকৃত হবে। দৈনন্দিন যে সকল জিনিস আমরা ব্যবহার করি কিন্তু একটু পুরাতন বা কেনার পর পরই অপছন্দ হওয়ার কারণে ব্যবহার করা বাদ দেই সেগুলো আমরা বিবেকের দেয়ালে উৎসর্গ করতে পারি। জিনিসগুলো হতে পারে ছোট বড় যে কোনো মাপের শীতবস্ত্র, জামা-কাপড়, জুতা, বিছানার চাদর, থালা, বাটি, হাঁড়ি-পাতিল, গ্লাস ইত্যাদি।

শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

ব্রেকিং নিউজঃ