ঘাটাইলে রাস্তা তো নয় যেন মরণফাঁদ ॥ দ্রুত সংস্কার দাবি

শেয়ার করুন

আব্দুল লতিফ, ঘাটাইল ॥
টাঙ্গাইলের ঘাটাইল উপজেলার দিঘর ইউনিয়নের নয়াপাড়া নারাঙ্গাইল গ্রামের দুই সহস্রাধিক গ্রামবাসীর একমাত্র চলাচলের রাস্তাটি বেহাল হয়ে পড়েছে। চলাচলের অনুপযোগী রাস্তাটি পাকাকরণের জন্য উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের কাছে দীর্ঘদিন ধরে জোড় দাবী জানিয়ে আসছে এলাকাবাসী।
সরেজমিনে এলাকাবাসীর সাথে কথা বলে জানা যায়, তারা প্রতিদিন দুই কিলোমিটার পথ পায়ে হেটে নয়াপাড়া পৌছে হামিদপুর বাজার এবং উপজেলা সদরে যাতায়াত করে। যাতায়াত ব্যবস্থা খারাপ থাকায় মানুষের অসুখ বিসুখ হলে চিকিৎসা নিতে বিরম্ভনার শিকার হতে হয়। এ গ্রামে কোন কমিউনিটি ক্লিনিক না থাকায় স্বাস্থ্য সেবা থেকেও বঞ্চিত হচ্ছে তারা। সামান্য বৃষ্টিতে রাস্তা কাদায় ভরে যায়। কোন রিক্সা-ভ্যান চলাচল করতে পারে না। এমনকি ছোট ছোট কোমলমতি শিক্ষার্থীদের পড়ালেখার জন্য একমাত্র স্কুলে যাতায়াত করতেও নানা অসুবিধা হচ্ছে।
নারাঙ্গাইল গ্রামে গিয়ে দেখা যায়, এখানে একটি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ও দুটি মসজিদ রয়েছে। সম্প্রতি নয়াপাড়া নারাঙ্গাইল রাস্তার ধারে একটি ছোট বাজার বসিয়েছে গ্রামবাসী। প্রতিদিন দুই কিলোমিটার পথ পায়ে হেটে শিক্ষক শিক্ষার্থী নারাঙ্গাইল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পৌছে। এ বিদ্যালয়ে স্থানীয় ও জাতীয় নির্বাচনের ভোট কেন্দ্র। ভোট কেন্দ্রে মালামাল আনা-নেয়াসহ নানা রকম কাজ করতে অনেক ভোগান্তির মধ্যে পড়তে হয়। ওই এলাকার গ্রামবাসী নয়াপাড়া থেকে ইদ্রিসের বাড়ি পর্যন্ত প্রায় তিন কিলোমিটার পথ দ্রুত সময়ের মধ্যে পাকাকরণ করে তাদের দীর্ঘদিনের কষ্ট লাঘব করার জন্য উর্ধ্বতন কতৃপক্ষের কাছে জোড় দাবী জানিয়েছেন।
এ গ্রামের মাতাব্বর আবুল কাশেম টিনিউজকে বলেন, আমরা সত্যি খুব অবহেলিত। যুগের পর যুগ ধরে আমাদের যোগাযোগ ব্যবস্থা নাজুক। কেউ দেখার নেই। রাস্তার এ করুন অবস্থার কারণে গ্রামের জনগণের জন দুর্ভোগ চরম পর্যায়ে এসে দাঁড়িয়েছে। এ গ্রামের সমাজ সেবক আবুল হোসেন টিনিউজকে জানায়, গ্রামের অসুস্থ রোগীরা দুই, তিন কিলোমিটার পথ পায়ে হেটে নয়াপাড়া গিয়ে অটো রিক্সা, ভ্যান যোগে উপজেলা সদর কিংবা পার্শ্ববর্তী কালিহাতী সদরে চিকিৎসা সেবা নিতে যেতে হয়। আমরা এ কষ্টকর অবস্থা থেকে মুক্তি চাই। আব্দুর রাজ্জাক নামে গ্রামের এক শিক্ষানুরাগী টিনিউজকে বলেন, নয়াপাড়া নারাঙ্গাইল কাচা সড়কটি পাকাকরণ খুবই জরুরী এখানে নারাঙ্গাইল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, গ্রামের দুটি মসজিদ অবস্থিত। গ্রামবাসী রাস্তাটির পাশে একটি নতুন বাজার বসিয়েছে। নানাবিধ কারনে সরকার আমাদের দিকে নজর দিবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।
এ ব্যাপারে দিঘর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ মামুন টিনিউজকে জানায়, আমরা রাস্তাটির জন্য স্থানীয় সংসদ সদস্যকে জানিয়েছি। দ্রুত ঠিক করার ব্যবস্থা করে দিবেন বলে তিনি আশ্বাস দিয়েছেন।

শেয়ার করুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

ব্রেকিং নিউজঃ